'সুপার ৩০' নিয়ে আসছেন হৃতিক রোশান

বিনোদন প্রতিদিন দীপান্বিতা সূত্রধর || 12 February 2018

পুরোপুরি ভিন্ন ধাঁচের চরিত্রে অভিনয় করে বলিউডে কাম ব্যাক করতে চলেছেন হৃতিক রোশান। পাটনার একজন গুণী গণিতজ্ঞ আনন্দ কুমারে জীবন নিয়ে নির্মিত হতে চলেছে 'সুপার ৩০'।


বলিউডের অন্যতম সুদর্শন ও গুণী অভিনেতা হৃতিক রোশান পুরোপুরি অন্য ধাঁচের চরিত্রে অভিনয় করে বলিউডে কাম ব্যাক করতে চলেছেন। ভারতের একজন বিশিষ্ট গণিতজ্ঞ আনন্দ কুমারের জীবন আলোকে নির্মিত হতে চলা এই চলচ্চিত্রটির পরিচালনা করবেন বিকাশ বেহেল।
১৯৯২ সালে আনন্দ কুমার অল্প কয়েকজন ছাত্র নিয়ে শুরু করেন রামানুজা স্কুল অফ ম্যাথমেটিক্স। ২০০২ সালের মে মাস থেকে রামানুজা স্কুল অফ অফ ম্যাথমেটিক্সে শুরু হয় সুপার ৩০ প্রোগ্রাম যেখানে পরীক্ষার মাধ্যমে ৩০ জন প্রতিভাবান ছাত্রকে নির্বাচন করা হয়। অনেক ছাত্র এতে অংশগ্রহণ করলে আনন্দ কুমার অর্থনৈতিকভাবে পিছিয়ে থাকা ত্রিশজন বুদ্ধিমান শিক্ষার্থীকে নির্বাচিত করেন এবং মেধাবী ছাত্রদের আইআইটি-জি পরীক্ষার জন্য প্রস্তুত করেন। এমনকি তিনি প্রায় এক বছরের জন্য সব ছাত্রদের অধ্যয়ন সামগ্রী এবং বাসস্থানের ব্যবস্থা করেন।
এই বছরের শুরুতেই সিনেমাটির শ্যুটিং শুরু হয়। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে টুইট করে তা জানান হৃতিক রোশান। হৃতিক রোশান সব সময়ই তার কাজের প্রতি আন্তরিক আর এবারো তার ব্যতিক্রম ঘটেনি। শুধুমাত্র সুপার ৩০ এর শুটিংএর জন্য পাটনার স্থানীয় বাচনভঙ্গি শিখার জন্য বিহারের একজন শিক্ষকের কাছে তালিম নিচ্ছেন তিনি।
সিনেমাটির চিত্রনাট্য লিখেছেন পেজ ৩, লাইফ ইন মেট্রো, গ্যাংস্টার এর চিত্রনাট্যের লেখক সঞ্জীব দত্ত। প্রধান নারী চরিত্রে হিন্দি টিভি সিরিয়ালের ‘কুমকুম ভাগ্যবতী’ এর অভিনেত্রী ম্রুনাল ঠাকুরকে দেখা যাবে। এই সিনেমায় হৃতিক রোশান, ম্রুনাল ঠাকুর ছাড়াও মোহাম্মদ জিশান আইয়ুব ও শিশুশিল্পী রিতভিক সাহরকে দেখা যাবে।
আনন্দ কুমার নিজেও তার চরিত্রকে যে হৃতিক রোশানের মত একজন প্রতিভাধর অভিনেতা ফুটিয়ে ধরবেন তা নিয়ে খুবই সন্তুষ্ট তিনি। হৃতিক রোশানের সর্বশেষ সিনেমা ‘কাবিল’ খুব একটা হিট না হলেও তার এই ভিন্ন ধরনের চলচ্চিত্র ‘সুপার ৩০’ নিয়ে তিনি আশাবাদী।
বাংলাদেশেও এরকম অনেক সাদা মনের মানুষ দেশের মানুষের সেবার জন্য নিরন্তর কাজ করে চলেছে। বাংলাদেশের চলচ্চিত্র পরিচালক; বিশেষ করে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের উচিত এরকম ধরনের অনুপ্রেরণামূলক চলচ্চিত্র বানানোর উদ্যোগ নেয়া উচিত।

Hrithik Roshan emerges with Super 30

Entertainment Dipanwita Sutradhar on 12 February 2018

Bollywood actor Hrithik Roshan is all set to comeback by portraying the life of an outstanding mathematician, Anand Kumar's real-life story. The movie will be directed by Bikash Bahl.


Bollywood actor Hrithik Roshan is all set to portray the life of an eminent mathematician, Anand Kumar and the movie’s storyline will be based on his powerful real-life story. The movie will be directed by Bikash Bahl.
In 1992, Anand Kumar started Ramanuja School of Mathematics with a few students to teach the poor students. Starting in May 2002, the Ramanuja School of Mathematics started ‘Super 30’ program where 30 talented students are selected through a test. Many students participated in this test but Anand Kumar selected economically unprivileged 30 intelligent students and prepared for the IIT-JEE examination. Additionally, He usually organizes study materials and accommodation for all students for nearly a year. He never take any donation and fund from government and non-government organizations. The institute runs through his passion about teaching and help of close friends. 
At the beginning of this year movie’s shooting started. Hrithik Roshan let his fans know about this through social media Twitter by tweeting. Hrithik Roshan is always sincere to his work and show his professionalism during movie. This time no exception happens. He is taking a training by a coach who is from Bihar so that he can adopt the local accent fluently. 
The film's screenplay will be written by ‘Page 3’, ‘Life in Metro’, ‘Gangster’ movie’s scriptwriter Sanjiv Dutt. Mrunal Thakur, famous face of Hindi TV serial 'Kumkum Bhagyabati' will be seen as the leading female character. Along with Hrithik Roshan and Mrunal Thakur- Mohammad Zishan Ayyub and child artist Ritvik Sahar are casted for this film. 
Anand Kumar himself is also very satisfied with the fact that Hrithik Roshan will portray his character on screen. Although Hrithik Roshan's last movie 'Kabil' was not that much successful but he is really optimistic of his 'Super 30'. 
In Bangladesh, there are so many kind hearted people who have been working continuously for people; especially for the poor people of the country. Film director of Bangladesh; mostly, Bangladesh Film Development Authority should take initiative to create such inspirational films.