যখন ফোন না ব্যবহারের জন্য পুরষ্কার দেয় মোবাইল অ্যাপ

প্রযুক্তি ভাবনা দীপান্বিতা সূত্রধর || 21 March 2018

বেশ কয়েকটি অ্যাপ আছে যেগুলোতে যদি কোন ছাত্র সাইন আপ করে তাহলে তারা প্রতি বিশ মিনিট ফোন ব্যবহার না করার জন্য ভার্চুয়াল পুরষ্কার পায়। আর এই পয়েন্টস দিয়ে তারা বিভিন্ন স্থানীয় দোকান থেকে বিনামূল্যে খাবার, পানীয় এমনকি সিনেমার টিকেট ও পেতে পারে।


একটা সময় ছিল যখন আমরা অবসর সময় কাটাতাম বই পড়ে, টিভি তে নির্দিষ্ট কিছু অনুষ্ঠান দেখে কিংবা বন্ধুদের সাথে ছাদে বা উঠানে গল্প করে। কিন্তু এখন আর আমাদের জীবন যাপন আগের মত নেই। সময়ের সাথে সাথে অনেক কিছুর পরিবর্তন এসেছে। বিশেষ করে বিশ্বের সব দেশের মত বাংলাদেশেও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলো অনেক জনপ্রিয়। ফেসবুক, ইন্সটাগ্রাম, টুইটার, স্ন্যাপচ্যাট, হ্যাপেনের মত অনেক সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এখন তরুণ সমাজ অনেক বেশি সময় কাটায়। বিশ্বে প্রায় ১ বিলিয়নের মত মানুষ ফেসবুক ব্যবহার করে। এই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম গুলোর যেমন সুবিধা বা ভাল দিক আছে এর সাথে আছে কিছু নেতিবাচক দিকও। অতিরিক্ত কোন কিছুই যেমন ভাল না তেমনি এখন কার প্রজন্ম অনেক সময়েই নিজের অজান্তে নিজেদের ক্ষতি ডেকে আনছে নিজেই। এক জরিপ থেকে জানা যায় এখন মানুষ ২৪ ঘণ্টার ১৮ ঘণ্টা সময়ই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে সচল থাকে আর এদের ৮০% এরই বয়স ১৬ থেকে ২৩। এর ফলে অনেক বিষয়ের সাথে সাথে পড়াশোনা এবং ছাত্র ছাত্রীদের ফলাফলের উপর খারাপ প্রভাব পড়ছে। 
ইন্টারনেট আর স্মার্ট ফোনের সহজলভ্যতার কারণে সারা বিশ্ব এখন হাতের মুঠোয়। ইন্টারনেটে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ছাড়াও আছে ইউটিউব, সাউন্ড ক্লাউড এর হাজার রকমের ওয়েবসাইট যেখানে মানুষ বিশেষ করে কম বয়সী ছেলে মেয়েরা সময় কাটাতে পারে। কিন্তু এখন এমন এক পরিস্থিতি চলে এসেছে যে স্কুল কলেজ আর বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা ক্লাসের সময়েও তাদের ফোন ব্যবহার করে চলেছে। আর এই খারাপ পরিস্থিতি ঠেকাতে এক অভিনব অ্যাপ বাজারে এনেছে মিটশ গ্রারডেনার ও রব রিচারডসন। ‘পকেট পয়েন্টস’ নামের এই অ্যাপ যদি কোন ছাত্র বা ছাত্রী সাইন আপ করে তাহলে তারা প্রতি বিশ মিনিট ফোন ব্যবহার না করার জন্য ভার্চুয়াল পুরষ্কার পায়। পেন স্টেট ইউনিভার্সিটি, ইউনিভার্সিটি অফ অ্যারিজোনা, ইউনিভার্সিটি অফ মিশিগান ছাড়াও আমেরিকার বেশ কয়েকটি স্কুল আর বিশ্ববিদ্যালয়ে এই অ্যাপটি বেশ জনপ্রিয়। 
আমেরিকার পর নরওয়েও তাদের স্কুল কলেজ আর বিশ্ববিদ্যালয়ে ‘হোল্ড’ নামের এরকম অ্যাপ এনেছে যাতে ছাত্র ছাত্রীরা ফোন ব্যবহার না করে ভার্চুয়াল পয়েন্টস পাবে আর এটি নতুন প্রজন্মের সাথে বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। প্রথম তিন মাসে এই ‘হোল্ড’ নামের অ্যাপটি ৫০ হাজার বার ডাউনলোড করা হয় এবং নরওয়ের ৪০% ছাত্রছাত্রী এটি ব্যবহার করে। 
কিন্তু ভার্চুয়াল পয়েন্টস দিয়ে কি এমন হয়? প্রতি বিশ মিনিট ফোন ব্যবহার না করার জন্য সবাই পয়েন্টস পায়। আর এই পয়েন্টস দিয়ে তারা বিভিন্ন স্থানীয় দোকান থেকে বিনামূল্যে খাবার, পানীয় এমনকি সিনেমার টিকেট ও পায়। এই ‘হোল্ড’ যে শুধু নরওয়ে তেই আছে টা নয়। ইউনিভার্সিটি কলেজ অফ লন্ডনে সাফল্যের সাথে ট্রায়াল এর পর যুক্তরাষ্ট্রের প্রায় ১৭০ বিশ্ববিদ্যালয়ে এই অ্যাপ ব্যবহারের অনুমতি পেয়েছে। 
এইধরনের অ্যাপ যেমন ছাত্র ছাত্রীদের কে মোবাইল ফোন আর ইন্টারনেটের আসক্তি থেকে সরিয়ে ফেলসে সেভাবে ব্যবসায়িক দিক থেকেও অন্যমাত্রা যোগ হবে। ‘পকেট পয়েন্টস’ কর্তৃপক্ষ পিটা পিট, কোল্ডস্টোন ক্রিমারি সহ অনেক স্থানীয় পিৎজ্জা ও বেগেল শপের সাথে নিজেদের অংশীদারিত্ব করেছে। অন্যদিকে, ‘হোল্ড’ ভিউ এন্টারটেনমেন্ট, ক্যাফ নাইরো, অ্যামাজন, প্ল্যানেট অরগানিক, আগ্লি ড্রিঙ্কস এবং ফ্লো মোশনের মত প্রতিষ্ঠানগুলো অংশীদারিত্ব করেছে। 
বাংলাদেশেও এইধরনের কোন অ্যাপ যদি আসে তাহলে ছাত্র ছাত্রীদের সময় মোবাইল ফোন আর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের প্রতি আসক্তি কমার সাথে সাথে ব্যবসায়িক ক্ষেত্রেও লাভবান হবে বলে আশা করা যায়। 

These apps will reward students for not to open up their phone while studying

Tech Dipanwita Sutradhar on 21 March 2018

If a student signs up for some specific apps then they can get a virtual prize for not using the phone for every twenty minutes and with those virtual points, they can get free meals, drinks and even movie tickets from different local shops.


There was a time when we spent our leisure time reading books, watching certain shows on TV or chatting with friends on the roof or in the courtyard. But now our life is not the same as before. Over time, many things have changed. Especially like other countries of the world, using mobile phones and social media are very popular in Bangladesh. Nowadays, young people occupy a lot of time in social media, like Facebook, Instagram, Twitter, Snapchat, Happen. There are advantages or good aspects of this social network, as well as some negative phases. Excess of anything is bad and the generation itself unknowingly causes harm to themselves by using social media and mobile phones recklessly. According to a survey, people are active in social media more than 18 hours in 24 hours and 80% of them are 16 to 23 years old. As a result, there has been a lot of impact on education and students’ results. 
As a consequence of the availability of internet and smartphones, the world is in the hands of people. Apart from social media, there are hundreds of thousands of websites on the Internet such as YouTube, Sound Cloud etc. where people, especially young people, can spend time. But now there is a situation that school, college, and university students have been using their phones during class. Two juniors at California State University, Chico Mitchell Gardener, and Rob Richardson launched an innovative app to prevent this kind of bad situation.
This app called is 'Pocket Points', if a student signs up, then they get a virtual prize for not using the phone for every twenty minutes. Penn State University, University of Arizona, University of Michigan, and this app is quite popular in many US schools and universities are recently using this and the result is quite satisfactory. 
Likewise, Norway also has an application called 'Hold' in their school colleges and universities so that students will get virtual points for not using the phone and it is becoming quite popular with the new generation. In the first three months, the 'Hold' app is downloaded 50 thousand times and Norway's 40% students use it.
But what is it virtual points and how does that work? Everyone gets points for not using the phone every twenty minutes. And with these points, they can get free meals, drinks and even movie tickets from different local shops. 'Hold' is not being used just in Norway, after successful trials in the University College of London, about 170 universities in the UK have been allowed to use this app.
This type of app, such as which will prohibit students from using mobile phones and addiction to the Internet, will be added some possibilities in the business as well. The ‘Pocket Points’ authority has a partnership with Pita Peta, Coldstone Creamery, and many local pizza and bagel shops. On the other hand, ‘Hold’ currently has signed a partnership with Vue Entertainment, Cafe Nero, Amazon, Planet Organic, Ugly Drinks and Flow Motion. 
If any such application comes in Bangladesh then it is expected that it will the Bangladeshi students to reduce the addiction of using mobile phones and social media on top of open a newfangled opportunity to in the business arena.